সাম্প্রতিক খবর

 

বিজ্ঞপ্তি
 
উচ্চ মাধ্যমিক ১ম বর্ষের (২০১৭-১৮) অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে যে, লাইব্রেরিতে অধ্যয়নের জন্য কার্ড প্রতি ৫০/- টাকা ধার্য করা হয়েছে। উক্ত টাকা আগামী ০৭ (সাত) দিনের মধ্যে জমা পূর্বক লাইব্রেরি হতে কার্ড গ্রহণ করার জন্য নির্দেশ দেয়া গেল।
 
 

শাহরাস্তি উপজেলাধীন মেহের ডিগ্রি কলেজ গভর্ণিং বডির সাধারাণ সভা/অধিবেশন নং-১৭ এ ০৩নং আলোচ্যসূচি অনুযায়ী মেহের ডিগ্রি কলেজ কমপ্লেক্সের উত্তর-পশ্চিমাংশে অবস্থিত ৪০/দ্ধ৪৫/ সেমি পাকা ঘরটি (চারপাশে দেয়াল ব্যতিত ও যেখানে যে অবস্থায় আছে ভিত্তিতে) উন্মুক্ত নিলামের মাধ্যমে বিক্রয় করার জন্য নিম্ন লিখিত শর্ত সাপেক্ষে উন্মুক্ত নিলাম ডাক আহবান করা যাচ্ছে। আগ্রহী নিলাম ডাককারীগণকে আগামী ১৯ মার্চ ২০১৮খ্রিঃ তারিখে সকাল-১১.০০ ঘটিকায় অধ্যক্ষ, মেহের ডিগ্রি কলেজ, শাহরাস্তি, চাঁদপুর এর কার্যালয়ে উপস্থিত হয়ে উন্মুক্ত নিলাম ডাকে অংশগ্রহণ করার জন্য অনুরোধ করা যাচ্ছে।

 

নোটিশ

 

২০১৭/১৮ শিক্ষাবর্ষের একাদশ শ্রেণির সকল ছাত্র/ছাত্রীদের অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে যে, আগামী ২২/০৪/২০১৮ইং তারিখ হতে কলেজের সমাপনী পরীক্ষা শুরু হবে। আগামী ২০/০৪/২০১৮ইং তারিখের মধ্যে কলেজ পরীক্ষার ফি ও বকেয়া বেতন পরিশোধ করার জন্য নির্দেশ দেওয়া গেল।

 

 

বিজ্ঞপ্তি

 

       স্নাতক ৩য় বর্ষ (২০১৪/১৫ শিক্ষা বর্ষ) এবং স্নাতক ২য় বর্ষ (২০১৫/১৬ শিক্ষা বর্ষ) এর শিক্ষার্থীদের জানানো যাচ্ছে যে, আগামী ২৯/০৩/১৮ইং ও ৩১/০৩/১৮ইং ইনকোর্স পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। সকল ছাত্র/ছাত্রীদের অবিলম্বে সেশন ফি ১০০০/- টাকা এবং ইনকোর্স ফি ৫০০/- টাকা অফিসে জমা দিয়ে ইনকোর্স পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য নির্দেশ দেয়া হলো।

ইতিহাস

১। স্থাপন কালে প্রতিষ্ঠানের নাম               :  মেহের কলেজ।

২। প্রতিষ্ঠানটির বর্তমান নাম                   :  মেহের ডিগ্রি কলেজ।

৩। স্থাপিত হওয়ার সন ও তারিখ              :  ০১/০৭/১৯৭২ (খ্রি:)

৪। প্রতিষ্ঠার প্রেক্ষাপট                           :  অত্র এলাকায় কোন কলেজ না থাকায় বিশিষ্টজনদের উদ্যোগের 

    প্রেক্ষিতে।

৫। প্রতিষ্ঠানটির অবস্থান                        :  প্রথমে নিজমেহার হাই স্কুল সংলগ্ন মাঠের দক্ষিণাংশে একটি টিনের 

    ঘরে স্থাপিত হয়। পরবর্তীতে ১৯৭৫ সালে  ২৮৭ নং উপলতা মৌজায়  স্থানান্তরিত হয়।   

৬। প্রতিষ্ঠাতা                                     :  সর্বস্তরের জনসাধারনের সর্বাত্মক সহযোগিতায় স্থাপিত।

৭। প্রতিষ্ঠায় নেতৃত্ব দান                        : 

কলেজ প্রতিষ্ঠা নেতৃত্ব দেন সর্বজনাব সন্তোষ কুমার ভট্টাচার্য, আজিজুর রহমান পাটোয়ারী, প্রয়াত সচিব ডঃ এম.এ সাত্তার, এম.এ আউয়াল মজুমদার, সাহাব উদ্দিন পাটওয়ারী, ইদ্রিস মোল্লা, কামাল পাশা মজুমদার, কমলাচরণ চক্রবর্তী, বিজয় বন্ধু ভট্টাচার্য, নরেশ চন্দ্র রায় চৌধুরী, চেয়ারম্যান নুরুল হক, আবদুস সাত্তার মিয়াজী, ডা: বদিউল আলম, খন্দকার আবু বকর ছিদ্দিক, ফিরোজ হোসেন চৌধুরী, চেয়ারম্যান আবদুল খালেক, হেডমাষ্টার ওয়ালি উল্যাহ, চেয়ারম্যান রুস্তম আলী, সুলতান মাষ্টার, ইউনুস মিয়া, আবদুল খালেক (উপলতা), চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হক পাটোয়ারী, তকদীর হোসেন, আঃ ওয়াদুদ খান, গোলাম কিবরিয়া, নীল রতন পোদ্দার প্রমুখ।

৮।   কলেজ প্রতিষ্ঠায় সাধারন সভা          :  ০১/০২/১৯৭২ (খ্রি:)

৯।   আহবায়ক কমিটিঃ সন্তোষ কুমার ভট্টাচার্যের  এর নেতৃত্বে ২১ সদস্য কমিটি।

১০। প্রস্তাবিত কমিটির স্থান নির্ধারন         : ০১/০২/১৯৭২।

১১। কলেজ প্রতিষ্ঠার সাধারন সভা          : স্থান-নিজমেহের হাই স্কুল, তারিখ ০৪/০৩/১৯৭২।

১২। সাংগঠনিক কমিটি                        : সন্তোষ ঠাকুরের নেতৃত্বে ৪১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি।

১৩। প্রতিষ্ঠা কালিন সময়ে জমির পরিমান- কোন জমি ছিল না ।

১৪। প্রতিষ্ঠানের ভিত্তিপ্রস্তর                   :

     ০১/০৭/১৯৭২ তারিখে প্রথমে নিজমেহার হাইস্কুলের সম্মুখে স্থানান্তরিত  হয় পরবর্তীতে 

     কলেজের কলেবর বৃদ্ধি পাওয়ায়  ১৯৭৫ সালে ২৮৭ নং উপলতা মৌজায় স্থানান্তরিত হয়।

১৫। প্রতিষ্ঠাকালীন সময়ে অবকাঠামোগত অবস্থা  : একটি টিনশেড ঘর।

১৬। অধ্যক্ষ, শিক্ষক ও কর্মচারী নিয়োগ             : কুমিল্লা জেলা প্রশাসকের সভাপতিত্বে প্রতিষ্ঠাতা 

      অধ্যক্ষ এম.এ আউয়াল মজুমদারসহ নিয়ম মোতাবেক অন্যান্য শিক্ষক ও কর্মচারী নিয়োগ

      করা হয়।

১৭। শিক্ষা বোর্ডের অনুমোদন প্রাপ্তিতে কার্যক্রমের সূচনা :

     মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডে অনুমোদন প্রাপ্তিতে ০১/০৭/১৯৭২ সালে কলেজের শিক্ষাদান 

     কার্যক্রমের সূচনা হয়।

১৮। প্রথম উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা অংশ গ্রহণ : ১৯৭৪ সালে প্রয়াত সচিব ডঃ এম.এ সাত্তার ও 

     কুমিল্লা জেলা প্রশাসকের সহায়তায় বিশেষ অনুমতিতে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় ২৪০ জন

     ছাত্র/ছাত্রী অংশ গ্রহন করে।

১৯।  বোর্ড কর্তৃক প্রথম একাডেমিক স্বীকৃতি : স্মারক নং ১৮৫৬ তারিখ ২০/০৬/১৯৭৮।

২০। এম.পি.ও ভুক্তি                            : উচ্চ মাধ্যমিক ০১/১২/১৯৮৪।

২১।  স্নাতক (পাস) খোলার অনুমতি          : ১৯৮৯/৯০ চট্রগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়।

২২। এম.পি.ও ভুক্তি স্নাতক                    : ০১/০৯/১৯৯০

২৩। ডিগ্রি কোর্সে ছাত্র /ছাত্রীর সংখ্যা         : বি.এ-২৭ জন, বি.কম-০৬ জন।

২৪। বর্তমানে শিক্ষক কর্মচারীর সংখ্যা        : শিক্ষক-৩৬, কর্মচারী-১২ জন।

২৫। অবকাঠামোগত সরকারি উন্নয়ন          :  ৩০,০০০/-

২৬। জমি ক্রয় ৫০ শতক।

২৭। ধারাবহিকভাবে ফলাফলের সাফল্য     :

      কলেজ প্রতিষ্ঠার পর থেকে অদ্যাবধি পর্যন্ত সাফল্যের সাথে ফলাফল অর্জিত হয়ে আসছে।

২৮। সহশিক্ষা কার্যক্রম                         :

      কলেজে পাঠ দানের পাশাপাশি ছাত্র/ছাত্রীদের মানসিক ও শারীরিক এবং সুস্থ বিনোদনের জন্য সাহিত্য সংষ্কৃতি

      খেলাধুলা ইত্যাদি আয়োজন করা হয়ে থাকে।

২৯। উচ্চ মাধ্যমিক বাউবি শাখা অনুমতি     :

      ২০০৪ সালে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় কতৃপক্ষ অত্র কলেজে বাউবি উচ্চ মাধ্যমিক শাখা খোলার অনুমতি প্রদান   

      করে।

৩০। বাউবি স্নাতক (পাস) খোলার অনুমতি  :

      ২০১৩ সালে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় কতৃপক্ষ অত্র কলেজে বাউবি স্নাতক (পাস)শাখা খোলার অনুমতি প্রদান

      করে।